সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ সরকার ও দেশের উন্নয়নে স্থিতিশীলতা দেয়- প্রধানমন্ত্রী

সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ সরকার ও দেশের উন্নয়নে স্থিতিশীলতা দেয়- প্রধানমন্ত্রী

জাতীয়

নিজস্ব প্রতিনিধি:
সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদের বিরোধিতা করায় কিছু সংসদ সদস্যের কঠোর সমালোচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ সরকার ও দেশের উন্নয়নে স্থিতিশীলতা প্রদান করে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘অনুচ্ছেদ ৭০ গণতন্ত্রকে রক্ষা করে এবং গণতন্ত্রের সুফল জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে এটিকে শক্তিশালী করে। কিন্তু, আমাদের (সংসদ) কিছু সদস্য এই ধারার বিরুদ্ধে। কারণ, এই অনুচ্ছেদের জন্য তারা তাদের ইচ্ছামতো সরকার তৈরি ও ভাঙার খেলা খেলতে পারছে না।’
সোমবার (১০ এপ্রিল) জাতীয় সংসদের সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে বিশেষ অধিবেশনে সমাপনী বক্তব্যে সংসদ নেতা এ কথা বলেন।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘মূলত সংসদ সদস্যদের ফ্লোর ক্রসিংয়ের কারণে, ১৯৪৬ এবং ১৯৫৪ সালের নির্বাচনের পরে গঠিত সরকারগুলিকে উৎখাত করার কথা উল্লেখ করে, কিছু সংসদ সদস্য তাদের অনভিজ্ঞতার কারণে সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ নিয়ে অনেকেই উদ্বেগ প্রকাশ করছেন। যারা এটা করছেন তাদের অভিজ্ঞতার অভাব থাকতে পারে। ৭০ অনুচ্ছেদ আমাদের দেশে সরকারকে স্থিতিশীলতা দিয়েছে- যার কারণে দেশ উন্নয়নের সাক্ষী হয়েছে।’
বিরোধী দলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদের তার বক্তব্যে সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ বাতিলের আহ্বান জানান। এর আগে, সংসদের কার্যপ্রণালী বিধির ১৪৭ ধারায় গত ৭ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত প্রস্তাবের ভিত্তিতে সংসদে বিশেষ আলোচনা হয়। রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ দেশের অর্জন তুলে ধরে স্মারক ভাষণ দেন।
সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ, সংসদ উপনেতা মতিয়া চৌধুরী, চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী, বিরোধীদলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদের প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *